ঘূর্ণিঝড় নিভা’রের আ’ঘাতে নি’হত ৩

ঘূর্ণিঝড় নিভা’রের আ’ঘাতে ভা’রতের তামিলনাড়ুতে অন্তত তিনজন প্রা’ণ হারিয়েছেন। ঝড়ের সঙ্গে প্রবল বৃষ্টিপাতে রাজ্যটিতে পানিব’ন্দি হয়ে পড়েছেন অসংখ্য মানুষ। তবে শক্তি হারিয়ে ঝড়টি ক্রমেই গভীর নিম্নচাপে পরিণত হচ্ছে বলে জানিয়েছে ভা’রতের আবহাওয়া অধিদফতর (আইএমডি)। গতকাল বুধবার (২৫ নভেম্বর) শেষরাতের দিকে ভা’রতের কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল পুডুচেরির কাছে আছড়ে পড়ে প্রবল শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় নিভা’র। তবে ঝড়ের শক্তি কমে আসায় ইতোমধ্যেই অঞ্চলটিতে জারি করা ১৪৪ ধারা তুলে নেয়া হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার (২৬ নভেম্বর) সকাল ৯টায় চেন্নাই বিমানবন্দরের কার্যক্রম আবারও

১৪৫ কিলোমিটার বেগে আঘাত হানছে ঘূর্ণিঝড় নিভার

ভারতের নামিল নাড়ু রাজ্যের দিকে ধেয়ে আসছে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ‘নিভার’। বুধবার মধ্যরাত থেকে বৃহস্পতিবার ভোর নাগাদ রাজ্যের মামাল্লাপুরাম উপকূলে ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১৪৫ কিলোমিটার বেগে আঘাত হানতে পারে। বঙ্গোপসাগর ও আরব সাগরের মধ্যবর্তী অঞ্চলে সৃষ্ট শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ‘নিভার’ ধেয়ে আসছে ভারতের তামিলনাড়ু উপকূলের দিকে। ভারতের আবহওয়া দফতরের জ্যেষ্ঠ আবহাওয়াবিদ আরকে জেনামানি বলেন, ঘূর্ণিঝড়টি বর্তমানে চেন্নাই থেকে প্রায় সাড়ে ৪০০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছে এবং প্রচণ্ড শক্তি সঞ্চয় করে এটি উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের দিকে অগ্রসর হচ্ছে। ঘূর্ণিঝড়টি তামিলনাড়ু উপকূলে

ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘নিভার’

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট সুস্পষ্ট লঘুচাপটি নিম্নচাপের রূপ নিয়ে দক্ষিণ পশ্চিম বঙ্গোপসাগর এলাকায় অবস্থান করছে। এটি আরো ঘনীভূত হয়ে ঘূর্ণিঝড় ‘নিভারে’ রূপ নিতে পারে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা।আবহাওয়া অধিদফতরের সিনিয়র আবহাওয়াবিদ আব্দুর রহমান জানান, ওই ঘূর্ণিঝড়ে বাংলাদেশের তেমন কোনো প্রভাব পড়বে না। তিনি বলেন, ভারত-শ্রীলঙ্কার দিকে যাবে ঘূর্ণিঝড়টি। নিম্নচাপটি বাংলাদেশ থেকে অনেক দূরে। ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে এখানে ঝড়-বৃষ্টি সেভাবে হবে বলে আমরা মনে করছি না। নভেম্বরের দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাসে আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছিল, এ মাসে বঙ্গোপসাগরে দুয়েকটি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে;

শীত কবে জেঁকে পড়বে জানালো আবহাওয়া অফিস

আগামী ৩ দিনে রাতের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে। এ সময় শীত কিছুটা জেঁকে পড়তে পারে। তবে শনিবার ভোর পর্যন্ত সারাদেশে রাতের ও দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকবে। আগামী ৭২ ঘণ্টা বা ৩ দিনের আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস। শুক্রবার সকাল ৬টা থেকে আগামী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে জানানো হয়েছে, অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে। আজ সকাল ৬টায় ঢাকায় বাতাসের আপেক্ষিক আর্দ্রতা ছিল ৯৩ শতাংশ। এদিকে দেশের সর্বনিম্ন

প্রবল শক্তি নিয়ে ফিলিপিন্সে আঘাত হেনেছে ‘গনি’

প্রবল শক্তি নিয়ে ফিলিপিন্সে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় ‘গনি’। রোববার (১ নভেম্বর) স্থানীয় সময় সকালে ঘণ্টায় ২২৫ কিলোমিটার গতিতে উপকূলীয় এলাকা ‘বিকল’-এ আঘাত হানে ঝড়টি। জানিয়েছে দেশটির আবহাওয়া দফতর। দেশটির আবহাওয়া বিভাগ জানায়, উপকূলে আঘাতের পর ঘূর্ণিঝড়টি লুজোন দ্বীপ অতিক্রম করেছে। এই দ্বীপেই রাজধানী ম্যানিলা অবস্থিত হওয়ায় অন্তত ১০ লাখ মানুষকে নিরাপদে সরিয়ে নেয়া হয়েছে। এখন পর্যন্ত কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায় নি। কর্তৃপক্ষ জানায়, ঘূর্ণিঝড়টির ফলে আগামী ১২ ঘণ্টায় দেশটির কয়েকটি প্রদেশে ভারি বৃষ্টি, আকস্মিক

কালই আঘাত হানবে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ঘূর্ণিঝড়

বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী (ক্যাটাগরি-৫) ঘূর্ণিঝড় ‘গনি’ ফিলিপাইনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। ফিলিপাইনের দক্ষিণাঞ্চলীয় লুজন দ্বীপে এটি আঘাত হানতে পারে ধারণা করছেন বিশেষজ্ঞরা।শনিবার (৩১ অক্টোবর) বার্তা সংস্থা রয়টার্সের একটি প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ঘূর্ণিঝড় ‘গনি’র সম্ভাব্য ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে শনিবার (৩১ অক্টোবর) কয়েক লাখ মানুষকে অন্যত্র চলে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, ঘণ্টায় ২১৫ কিলোমিটার গতিতে ঘূর্ণিঝড় গনির কারণে আগামীকালরোববার (১ নভেম্বর) ভূমিধস হতে পারে ধারণা করছেন দেশটির বিশেষজ্ঞরা। এর আগে,

কেটে গেছে নিম্নচাপ, দেশে নভেম্বরেই শীতের আগমন

অবশেষে নিম্নচাপ কেটে যাওয়ায় দেশের বিভিন্ন স্থানে কমে গেছে বৃষ্টিপাত। সে সঙ্গে সমুদ্রবন্দরে দেওয়া সতর্ক সংকেতও নামিয়ে ফেলতে বলছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর। আবহাওয়া অফিস থেকে জানানো হয়েছে, নিম্নচাপের প্রভাবে সারাদেশে টানা বৃষ্টিপাত অব্যাহত থাকলেও তা শনিবার (২৪ অক্টোবর) থেকে কিছুটা কমে গেছে। তবে আগামীকাল রবিবারও কিছু জায়গায় হালকা থেকে মাঝারি বর্ষণ হতে পারে। বৃষ্টিপাত কমে যাওয়ায় এখন থেকে রাতের তাপমাত্রা ভোরের দিকে ধীরে ধীরে কমে আসতে শুরু করবে। নভেম্বরের মাঝামাঝি থেকে সারাদেশে শীতের আগমন ঘটবে

দুঃসংবাদ দিল বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট লঘুচাপটি নিম্নচাপে রূপ নেওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। সুস্পষ্ট লঘুচাপটি আরও ঘণীভূত হচ্ছে। এর প্রভাবে ঝড়ো হাওয়ার শঙ্কায় দেশের সমুদ্রবন্দরগুলোকে ৩ নম্বর সতর্কতা সংকেত দেখাতে বলেছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। আবহাওয়া অফিস বলছে, গত ১০ অক্টোবর বঙ্গোপসাগরে একটি লঘুচাপ তৈরি হয়েছিল। সেটি পরে গভীর নিম্নচাপে পরিণত হয়ে ভারতের ওড়িশায় স্থলভাগ অতিক্রম করে। তখন অবশ্য কোনো ধরনের ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। অবশ্য এই মাসে একটি ঘূর্ণিঝড়ের খবর আগেই দিয়ে রেখেছে আবহাওয়া অফিস। ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিলে তখন তার নাম হবে

কেন্দ্রে বাতাসের গতি ঘণ্টায় ৫০ কিমি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে

অক্টোবর মাসের দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাসে আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছিল, এ মাসে বঙ্গোপসাগরে এক থেকে দুটি লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে, যার মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে। রোববার (১১ অক্টোবর) আবহাওয়া অফিস এক বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, পূর্ব-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর এলাকায় অবস্থানরত সুস্পষ্ট লঘুচাপটি ঘনীভূত হয়ে একই এলাকায় নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে। নিম্নচাপ কেন্দ্রের ৪৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ৪০ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝড়োহাওয়া আকারে ৫০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। নিম্নচাপ কেন্দ্রের কাছে

রংপুরে গত ১০০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাতের রেকর্ড। প্রায় ৫০ হাজার মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়েছেন।

রংপুরে গত ১০০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাতের রেকর্ড হয়েছে। টানা বৃষ্টিতে রংপুর মহানগরসহ জেলার অধিকাংশ এলাকা পানিতে তলিয়ে গেছে। এতে নগরীর প্রায় ৫০ হাজার মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়েছেন। রংপুর আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, শনিবার রাত ১০টা থেকে রবিবার সকাল ১০টা পর্যন্ত ৪৩৩ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে, যা এত অল্প সময়ে গত ১০০ বছরেও এমন বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়নি। বৃষ্টিতে তলিয়ে গেছে নগরীর জলাবদ্ধতা নিরসনের একমাত্র অবলম্বন শ্যামা সুন্দরী ও কেডি ক্যানেল। ভেঙে পড়েছে নগরীর ড্রেনেজ