অভাবী ছাত্র-ছাত্রীদের ডা’ক্তারি পড়াবেন সোনু সুদ, আন’লেন নতুন স্কলা’রশিপ প্রোগ্রাম

করো’না কালে দরিদ্র অ’সহায় মা’নুষের পাশে দাঁ’ড়িয়ে গোটা দেশের আশীর্বাদ পেয়েছেন সোনু সুদ। বলিউড অ’ভি’নেতার চেয়েও একজন প্রকৃত মানব’দ’রদী হিসেবে তাঁর জনপ্রিয়’তা তু’ঙ্গে উঠেছে।

পরো’পকা’রের নজিরে ইতিমধ্যে আন্ত’র্জাতিক স্বী’কৃতিও পেয়ে গিয়ে’ছেন তিনি। কিন্তু তাঁর পর’হি’তব্রতে বিরাম আসে নি। বরং দিন দিন তাঁর সা’হায্যের হাত যেন বড়ো হয়ে চলেছে আরও।

এবার দেশের প্রত্যেক শিশু, যারা বড় হয়ে ডা’ক্তার হও’য়ার স্বপ্ন দেখে, তাঁদের জন্য নতুন উদ্যোগ গ্রহ’ণ কর’লেন সোনু সুদ। ব্যক্তিগত উ’দ্যোগে তিনি চালু করলেন নতুন স্ক’লার’শিপ প্রো’গ্রাম।

জানা গেছে, যে সমস্ত মেধাবী ছাত্র ছাত্রী ডা’ক্তার হওয়ার স্বপ্ন দেখে, কিন্তু টা’কার অ’ভাবে তা স’ম্ভব হয়ে ওঠে না, তাঁদের জন্য চালু করা হয়ে’ছে সোনু সুদে’র নতুন স্কলার’শিপ প্রো’গ্রাম। অ’ভিনেতা নি’জেই সো’শ্যাল মিডি’য়ায় জা’নিয়েছেন এই নতুন উ’দ্যো’গের কথা।

শনিবার নিজের ট্যুইটার হ্যা’ন্ডেলে এই নতুন প্রো’গ্রামের কথা ঘোষণা করেন সোনু সুদ। তিনি লেখেন, “প্রত্যেক শিশু যে ডা’ক্তার হওয়ার স্বপ্ন দেখে, আমি চাই সে ডাক্তার হোক। আমি আজ SONUISM. ORG-র সূচনা করছি। এটা আমা’র নতুন স্কলা’র’শিপ প্রো’গ্রাম যা ISM EDUTECH-এর স’ঙ্গে যৌ’থ’ভাবে আমি গড়ে তুলেছি। অভা’বী ছাত্র ছাত্রী যারা ডাক্তার হওয়ার স্বপ্ন দেখে তাদের সাহায্য করা’র জন্যই এই প্রোগ্রাম। আসুন আমর’া একটা সুস্থ দেশ গড়ে তুলি।”

বস্তুত, আ’ইএস’এম এডুটেক প্রা’ইভেট লি’মিটেড হল একটি শিক্ষা বি’ষয়ক পরামর’্শ দানের প্রতিষ্ঠান যা হরি’য়ানার গু’রগাঁ’ওতে অবস্থিত। এই সংস্থার স’ঙ্গে যৌ’থ উদ্যোগে সোনু সুদ তাঁর স্ক’লার”শিপ প্রোগ্রা’ম চালু করেছেন। তাঁর এই স্ক’লার”শিপের মাধ্য’মে বি’দেশী প্রতিষ্ঠানেও ডাক্তারি পড়ার সুযোগ রয়েছে। সোনু সুদের এই অ’ভিনব উদ্যোগকে কুর্নিশ জানিয়েছে গোটা দেশ।

প্রস’ঙ্গত উল্লেখ্য, করো’না ভাই’রাসে’র প্রাদু’র্ভা’বে ভারত জুড়ে যখন ল’কডাউন শুরু হয়েছিল, তখন পরি’যা’য়ী শ্রমি’ক’দের ঘরে ফেরাতে ব্য’ক্তিগত উ’দ্যোগ গ্রহণ ক’রেছি’লেন সোনু সুদ। সেই থেকে যে মান’বসে’বার সূচনা তিনি করে’ছেন আজও তাতে ছেদ পড়েনি। কিছুদিন আগে পা’ঞ্জাবের রাজ্য আ’ইকন হিসে’বেও ঘো’ষণা ক’রা হয়েছি’ল তাঁকে।

আরো পড়ুনঃ   বদলে যাচ্ছে শিক্ষা খাত, সক্ষমতা নিয়ে প্রশ্ন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *